HomeUncategorizedগোবিন্দগঞ্জে স্মার্ট ও তারুণ্যের বাংলাদেশ বির্নিমাণ শীর্ষক বিশাল জনসমাবেশে সাবেক এমপি

গোবিন্দগঞ্জে স্মার্ট ও তারুণ্যের বাংলাদেশ বির্নিমাণ শীর্ষক বিশাল জনসমাবেশে সাবেক এমপি

print news

নাদিরা সরকার, গাইবান্ধা গোবিন্দগঞ্জ প্রতিনিধিঃ
গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে জননেত্রী শেখ হাসিনার স্মার্ট ও তারুণ্যের বাংলাদেশ বিনির্মাণ শীর্ষক বিশাল জনসমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (১৮ অক্টোবর) বিকালে উপজেলার ফাঁসিতলা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে কামারদহ ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনগণের আহ্বানে এ তারুণ্যের সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে সরকারের চলমান উন্নয়নের গুরুত্বপূর্ণ দিক তুলে ধরে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকাকে বিজয়ী করতে দিক-নির্দেশনামূলক বক্তব্য রাখেন সাবেক সংসদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ।

তিনি বলেন- পঁচাত্তর পরবর্তী বাংলাদেশে দুঃশাসন চালিয়েছে এদেশের চির শত্রুরা। দেশের উন্নয়নকে স্তমিত করে দাসত্বের শৃঙ্খলে আবদ্ধ করতে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে দমন-পীড়নে নানা মুখী ষড়যন্ত্র করেছে। কিন্তু তাদের সেই ষড়যন্ত্রকে নসাৎ করে দেশবাসী ১৯৯৬ সালে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় আনে। পরবর্তীতে দেশ বিরোধী চক্রান্তে বিএনপি-জামায়াত ক্ষমতায় এসে দেশের উন্নয়নকে আবারও বাঁধাগ্রস্ত করে। তারা বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে আবারও নেতৃত্ব শূন্য করতে তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেত্রী বঙ্গবন্ধু তনয়া জননেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার চক্রান্তে ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলা করে। তাদের সেই হায়েনার কবল থেকে দেশবাসী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে ২০০৮ সালে আবারও ক্ষমায় বসায়। সেই থেকে টানা পনেরো বছর সরকারের রয়েছে আওয়ামী লীগ।

তিনি আরও বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্ব ও দূরদর্শিতায় বাংলাদেশ আজ বিশ্বের রোল মডেলে পরিণত হয়েছে। দেশে যোগাযোগ ব্যবস্থার আধুনিকায়ন, তথ্য-প্রযুক্তিতে অনন্য উচ্চাতায় নিয়ে ডিজিটাল বাংলাদেশের সাহসী ঘোষণাই শুধু নয়; সামাজিক ও রাষ্ট্রীয় সুরক্ষা নিশ্চিতকরণ, শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও অর্থনৈতিক উন্নয়নে দেশবাসীকে স্মার্ট করে গড়ে তুলতে যুগান্তকারী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন। যা বাস্তবায়নে জননেত্রী শেখ হাসিনা ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে পুনরায় ক্ষমতা আনার বিকল্প নেই।

আসছে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ৩২, গাইবান্ধা-৪ (গোবিন্দগঞ্জ) আসন থেকে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী জননেতা অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ নৌকাকে বিজয়ী করতে তারুণ্যের এ সমাবেশে তরুণ ও যুবকদের ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান।

কামারদহ ইউনিয়নের বিশিষ্ট সমাজ সেবক ও অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম মণ্ডলের সভাপতিত্বে ও কামারদহ ইউপি চেয়ারম্যান তৌকির হাসান রচির সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন- গোবিন্দগঞ্জ পৌরসভার মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য মুকিতুর রহমান রাফি, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক অর্থ বিষয়ক সম্পাদক আতিকুর রহমান আতিক, মহিমাগঞ্জ আওয়ামী লীগের সভাপতি মুন্সি রেজওয়ানুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক মজিবুর রহমান, শালামারা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি হায়দার আলী, সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম মাস্টার, কোচাশহর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রব্বানী, রাখালবুরুজ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, কামদিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুর রউফ শাহেন শাহ্, কাটাবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম পান্না, শাখাহার ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি তাহাজুল ইসলাম ভুট্টু, শাখাহার ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম মণ্ডল, সাপমারা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আইয়ুব হোসেন, দরবস্ত ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ. আজিজ মাস্টার, তালুককানুপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুস সামাদ মাস্টার, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম লিচু প্রমুখ।

আরও বক্তব্য রাখেন- নাকাই ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের, তালুককানুপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আতিকুর রহমান আতিক, শিবপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান তৌহিদুল ইসলাম প্রধান, মহিমাগঞ্জ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক চেয়ারম্যান রুবেল আমিন শিমুল, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সভাপতি মাহমুদুর রহমান লাভলু, জেলা পরিষদের সদস্য জাহাঙ্গীর আলম, সাপমারা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শাকিল আকন্দ বুলবুল, কামারদহ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান তৌকির হাসান রচি, গুমানীগঞ্জ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাছুদুর রহমান মুরাদ, গোবিন্দগঞ্জ পৌরসভার প্যানেল মেয়র ১ কাউন্সিলর শাহিন আকন্দ, কাউন্সিলর মাজেদুল ইসলাম, কাউন্সিলর জাহাঙ্গীর আলম জাফু, হিন্দু বৌদ্ধ খৃষ্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি বাবু শৈলেন্দু মোহন রায় স্বপন, মহিমাগঞ্জ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আতিকুর রহমান আতিক, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক মমিনুল ইসলাম, সহ-সভাপতি অহেদ বি.এস-সি প্রমুখ।

তরুণ ও যুবকদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক ফরহাদ, যুগ্ম আহবায়ক সাদ্দাম, যুগ্ম আহবায়ক বাবুল, তাঁতী লীগের সভাপতি মমিন শেখ রুবেল, সাংগঠনিক সম্পাদক সাগর, হাবিবুর রহমান, পৌর ছাত্রলীগের আহবায়ক আরিফ, সাপমারা যুবলীগের আহবায়ক তারেফুল বাশার দুলাল, ফুলবাড়ী যুবলীগের সভাপতি জীবন মণ্ডল, হরিরামপুর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহজাহান, শাখাহার যুবলীগের সভাপতি তারিফুজজ্জামান সাগর, কাটাবাড়ী যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক আতাবর, তালুককানুপুর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সাইদ, কামদিয়া যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক লিটন চৌধুরী, শাখাহার যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আহম্মদ আলী, কাটাবাড়ী যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক সেলিম, উপজেলা যুব মহিলা লীগের সদস্য আইনুন নাহার সাথি প্রমুখ।

এই বিভাগের আরো খবর

সর্বশেষ সংবাদ

দশ জনপ্রিয় সংবাদ