Homeসারাদেশচুয়াডাঙ্গাচুয়াডাঙ্গা জেলার মান-মর্যাদা বৃদ্ধিতে প্রতিনিয়ত ভূমিকা রেখে চলেছেন দিলীপ কুমার

চুয়াডাঙ্গা জেলার মান-মর্যাদা বৃদ্ধিতে প্রতিনিয়ত ভূমিকা রেখে চলেছেন দিলীপ কুমার

print news

জনতার ডেস্ক:
‘দিলীপ কুমার আগরওয়ালা চুয়াডাঙ্গা ও আলমডাঙ্গাসহ এ জেলার সকল মানুষের কল্যাণে নিজেকে উৎসর্গ করেছেন। এছাড়া বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক কেন্দ্রীয় উপ-কমিটিতে টানা তিনবার সদস্য নির্বাচিত হয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। কৃতী ব্যবসায়ী হিসেবে সারা দেশেই শুধু নয়, আন্তর্জাতিকভাবেও সমাদৃত হয়ে চুয়াডাঙ্গা জেলার মান-মর্যাদা বৃদ্ধিতে প্রতিনিয়ত ভূমিকা রেখে চলেছেন। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি হিসেবে দিলীপ কুমার আগরওয়ালারা পারিবারিকভাবেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে বিশ্বাসী। দিলীপ কুমার এখন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে নিজের মেধা ও যোগ্যতা দিয়ে এগিয়ে চলেছেন। তাই দিলীপ কুমার আগরওয়ালা চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে যোগ্য এমপি প্রার্থী। নৌকার মাঝি হিসেবে তিনিই চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের যোগ্য থেকে যোগ্যতর নেতা। তাই তো আমরা শহর-গ্রামে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার ১৫ বছরের উন্নয়ন তুলে ধরতে দিলীপ কুমার আগরওয়ালার নেতৃত্বে কাজ করছি।’

গতকাল বৃহস্পতিবার চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গা উপজেলার জামজামি ইউনিয়নব্যাপী স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গসংগঠনের নেতা-কর্মীরা নৌকা প্রতীকের পক্ষে পথসভা, গণসংযোগ ও সরকারের উন্নয়নের সচিত্র লিফলেট বিতরণকালে এসব কথা বলেন। এসময় নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, নেতা-কর্মীদের ঐক্যই হচ্ছে আওয়ামী লীগের মূল শক্তি। তাই সকল ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে ঐকবদ্ধ থাকতে হবে। আগামী নির্বাচনে নতুন চ্যালেঞ্জ নিয়ে এগিয়ে যেতে হবে, দলকে আরও আধুনিক ও শক্তিশালী করে গড়ে তুলতে হবে। সকল অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন ঐক্যবদ্ধ থাকলে কেউ দলের কোনো ক্ষতি করতে পারবে না। প্রত্যেক ইউনিয়ন ও ওয়ার্ডে শক্তিশালী আওয়ামী লীগ গড়ে তুলতে হবে। আর দিলীপ কুমার আগরওয়ালা চুয়াডাঙ্গা ও আলমডাঙ্গায় আওয়ামী লীগকে ঐক্যবদ্ধ করে স্মার্ট চুয়াডাঙ্গা গড়তে কাজ করছেন। তাই আমরা তৃণমূলের নেতৃবৃন্দ চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে নৌকার মাঝি হিসেবে দিলীপ কুমার আগরওয়ালাকেই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার কাছে চাইবো।’

জামজামি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক এস এম আশরাফুল করিম রিপন শাহ’র নেতৃত্বে গণসংযোগ, পথসভা এবং সরকারের উন্নয়নের সচিত্র লিফলেট বিতরণকালে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক ও ভাংবাড়ীয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান কাওসার আহম্মেদ বাবলু, পদ্মবিলা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আবু তাহের বিশ্বাস, খাদিমপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হালিম মন্ডল, কুমারী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি রানা, ডাউকি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মোনায়েম হোসেন, কৃষক লীগের সেক্রেটারি এমদাদ হোসেন, পৌর আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়ায়েচ কুরুনি টিটু, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা পবিত্র কুমার আগরওয়ালা, জামজামী ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ইজাল উদ্দিন, ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সেক্রেটারি রইচ উদ্দিন, ৭ নম্বর ওয়ার্ডের সভাপতি কুরবান আলী, ডাউকি ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ নেতা জেকের আলী, ইউনিয়ন যুবলীগের সেক্রেটারি কামাল হোসেন, সদস্য উসমান আলী প্রমুখ। গণসংযোগ ও পথসভায় স্থানীয় আওয়ামী লীগ, কৃষক লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ ও কর্মী-সমর্থকেরা উপস্থিত ছিলেন।

এই বিভাগের আরো খবর

সর্বশেষ সংবাদ

দশ জনপ্রিয় সংবাদ