Homeসারাদেশদিনাজপুরবিজিবি'র কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে হিলিতে যুবক কারাগারে

বিজিবি’র কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে হিলিতে যুবক কারাগারে

print news

দিনাজপুরের হিলিতে সরকারি কাজে বাধা ও বিজিবির কাছ থেকে ভারতীয় পন্য ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগে হিলি জিরো পয়েন্ট থেকে লিটন (৩২) নামে এক যুবককে আটক করেছে বিজিবির সদস্যরা । তবে মিথ্যা অভিযোগে তাকে আটক করা হয়েছে ও তাকে মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ পরিবারের।

গতকাল বুধবার (০৩ এপ্রিল) বিকেলে হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট সীমান্তের শূন্য রেখায় এই ঘটনা ঘটে। পরবর্তীতে আটক যুবককে হাকিমপুর থানায় মামলা দায়ের পূর্বক পুলিশের নিকট জমা পুলিশ আজ তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়ে দিয়েছেন।

আটককৃত লিটন হাকিমপুর উপজেলার ধরন্দা গ্রামের মৃত আশরাফুল ইসলামের ছেলে। হিলি আই সিপি ক্যাম্পের বিজিবি সদস্য নায়েক ওমর আলীর হাকিমপুর থানায় মামলা এজাহারে উল্লেখ করেন, বুধবার দুপুরে হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট গেইটের জিরো পয়েন্টে ডিউটি রত থাকা কালিন সময়ে ভারত থেকে এক নারী পাসপোর্ট যাত্রী দুইটি কাপড়ের কালো ব্যাগে ভারতীয় পন্ডস বিউটি ক্রিম নিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করে।

এসময় ওই পাসপোর্ট যাত্রীকে ব্যাগে পন্যের বিষয়ে জিজ্ঞেস করলে সে কোন সঠিক উত্তর দিতে না পারায় ওই ব্যাগ দুইটিতে থাকা ৫৮ কেজি পন্ডস ক্রিম হিলি বন্দর শুল্ক অফিসে প্রেরন কালে আসামি লিটন চেকপোস্টের মেইন পিলার ২৮৫/ ১১ এস হইতে আনুমানিক ৩০ গজ বাংলাদেশ অভ্যন্তরে আমার পথ রোধ করে সরকারি কর্তব্য পালনে বাধা প্রদান করিয়া ভারতীয় পণ্য সামগ্রী বোঝায় কালো কাপড়ের ব্যাগ দুটি ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে এবং আমাকে ধাক্কা মারলে আমি মাটিতে পড়ে গিয়ে আঘাত পাই। পরে অন্য কর্তব্যরত বিজিবি সদস্যদের সহযোগিতায় আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তার দেহ তল্লাশি করে দুইটি মোবাইল এবং সিমসহ দুইটি সিম জব্দ করা হয়েছে।

হাকিমপুর হিলি পৌরসভার ধরন্দা এলাকার কাউন্সিলর রফিকুল ইসলাম (কেবলা) বলেন, আটক আসামী লিটনকে আমি ভালো ভাবে চিনি।

তিনি তার পরিবারের বারাদ দিয়ে বলেন, লিটন দীর্ঘ দিন থেকে হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্টে বিভিন্ন পার্স পোর্ট যাত্রীর ব্যাগ নিয়ে যাওয়া এবং নিয়ে আসার কাজ করে। শুনলাম গত কয়েক দিন পূর্বে ওই বিজিবি সদস্য’র সাথে লিটন এর বাকবিতন্ডা হয়েছে এবং লিটন উর্ধতন কতৃপক্ষের নিকট অভিযোগ করলে ওই বিজিবি সদস্যর বিরুদ্ধে কতৃপক্ষ ব্যবস্থা গ্রহণ করেন। আজ প্রায় সাত দিন পরে ওই এলাকায় ডিওটি করতে এসে লিটনকে দেখে তার ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে বিজিবি সদস্য। তারপর তাকে জনসম্মুখে মাটধর ও ক্যাম্পে নিয়ে গিয়েও মারধর করেন বিজিবি সদস্যরা। পরে থানা পুলিশ এর নিকট মামলা দায়ের পূর্বক আসামি জমা দিলে পুলিশ আজ তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়ে দিয়েছেন।

এবিষয়ে জয়পুরহাট ২০ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে: কর্নেল তানজিলুর রহমান বলেন, বিজিবির কাজে বাধা প্রদান, বিজিবি সদস্যকে ধাক্কা মেরে তার কাছ থেকে পণ্য ছিনিয়ে নেওয়া কোন ভাবে কাম্য নয়। আমি সংবাদ পাওয়া মাত্রই থানা পুলিশ এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে অবগত করি। আমি নিজেও ঘটনাস্থলে এসে সবার সাথে কথা বলেছি। ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় আটক আসামীর বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেছেন বিজিবি সদস্য।

এই বিভাগের আরো খবর

সর্বশেষ সংবাদ

দশ জনপ্রিয় সংবাদ